Tuesday, May 28, 2024
spot_img
spot_img
Homeজেলাবারুইপুর সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে মারধর, আহত ৫

বারুইপুর সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে মারধর, আহত ৫

প্রদীপকুমার সিংহ, বারুইপুর: অনেকদিন ধরেই অভিযোগ উঠছিল বারুইপুর সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে টিকিট কাউন্টারের বিড়ম্বনা নিয়ে। আউটডোরে ডাক্তারকে দেখাতে গেলে টিকিট কাউন্টার থেকে টিকিট নিতে হয় সকল ন’টা থেকে দুটোর মধ্যে। কিন্তু বারুইপুর মহকুমা হাসপাতালে দিন দিন আউটডোরে ডাক্তারের রোগী দেখার সংখ্যা বেড়েই যায়। ফলে টিকিট কাটার জন্য সকাল থেকেই লাইন পড়ে।

বারুইপুর সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে মারধর, আহত ৫

কিন্তু সোমবার বারুইপুর সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে রোগীদের আত্মীয়দের হামলায় আহত হন এক সিভিক ও নিরাপত্তারক্ষী। অভিযোগ, দুপুর দু’টোর পর বেশ কয়েকজন রোগীর আত্মীয়রা আউটডোরে চিকিৎসার জন্য টিকিট সংগ্রহ করার উদ্দেশ্যে লাইনে দাঁড়িয়ে ছিলেন। নির্দিষ্ট সময়ে টিকিট কাউন্টার বন্ধ হয়ে যাওয়ায় তাঁরা ক্ষোভ উগরে দেন। প্রথমে বচসা, তারপর নিরাপত্তারক্ষী ও সিভিক ভলান্টিয়ারদের উপর রোগীর আত্মীয়-স্বজনরা হামলা চালায় বলে অভিযোগ।

বারুইপুর সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে মারধর, আহত ৫

এই ঘটনায় চারজন আহত হন। পাল্টা রোগীর আত্মীয়দের অভিযোগ, তাদের উপরেও হামলা চালায় নিরাপত্তা রক্ষীরা। এই ঘটনায় রোগীর আত্মীয় দুই মহিলা আহত হন। ঘটনাকে কেন্দ্র করে চরম উত্তেজনা ছড়ায়। ঘটনাস্থলে আসে বারুইপুর থানার বিশাল পুলিশ বাহিনী। ঘটনায় বেশ কয়েকজনকে আটক করে নিয়ে যায় বারুইপুর থানার পুলিশ। হাসপাতাল চত্বরে মোতায়েন করা হয়েছে পুলিশ।

বারুইপুর সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে মারধর, আহত ৫

আহত সিভিক শফিউল্লাহ সরদার বলেন, দু’টোর পর বারুইপুর সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে রোগী পরিজনদের সঙ্গে হাসপাতলে নিরাপত্তা কর্মীদের সংঘর্ষ হয়। সেই খবর পেয়ে তাঁরা ছুটে যান ঘটনাস্থলে। রোগীর আত্মীয় পরিজনদের বোঝানোর চেষ্টা করেন। তাঁরা তাঁর কথায় কান না দিয়ে তাঁর ওপর হামলা করে তাঁর জামা-গেঞ্জি ছিঁড়ে দেয় এবং মুখে-চোখে আঘাত করেন। বেশ কয়েকজন সিভিক ও নিরাপত্তা কর্মী, মহিলা কর্মী আহত হন।

বারুইপুর সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে মারধর, আহত ৫

বারুইপুর থানায় খবর দিলে পুলিশ এসে অভিযুক্ত রোগীর আত্মীয়দের আটক করে নিয়ে যায় বারুইপুর থানায়। নিয়ে যাওয়ার সময় রোগীর আত্মীয়-স্বজনরা পুলিশের গাড়ির সামনে বসে পড়েন। পুলিশ তখনও তাঁদেরকে বুঝিয়ে গাড়ির সামনে থেকে সরিয়ে দেয়। যেসব নিরাপত্তা কর্মী ও সিভিক কর্মীরা আহত হয়েছেন, তাঁদেরকে বারুইপুর মহাকুমা হাসপাতালে চিকিৎসা করানো হয়।

Most Popular

error: Content is protected !!