Wednesday, February 28, 2024
Homeরাজ্যগঙ্গাসাগরে পুণ্যার্থীদের লুঠ করা হয়েছে, দাবি শুভেন্দুর

গঙ্গাসাগরে পুণ্যার্থীদের লুঠ করা হয়েছে, দাবি শুভেন্দুর

স্টাফ রিপোর্টার: গঙ্গাসাগরে পুণ্যার্থীদের থেকে রীতিমতো ‘লুঠ’ হয়েছে। এক্স হ্যান্ডেলে পোস্ট করে দাবি করলেন রাজ্য বিধানসভার বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী। সোশ্যাল সাইটে শুভেন্দু লিখেছেন, ‘দেউলিয়া পশ্চিমবঙ্গ সরকার মোটা টাকা রোজগার করতে সাধারণ মানুষকে নিংড়াচ্ছে। গঙ্গাসাগর মেলায় রাজ্য সরকারের খরচে বিশ্বমানের পরিষেবার ব্যবস্থা করা হয়েছে বলে রোজ ঢ্যাঁড়া পেটানো হয়েছে।

গঙ্গাসাগরে পুণ্যার্থীদের লুঠ করা হয়েছে, দাবি শুভেন্দুর

কিন্তু বাস্তবটা অনেকটাই আলাদা। আসলে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সরকার শূন্য ভাঁড়ার পূর্ণ করতে গঙ্গাসাগর মেলাকে ব্যবহার করেছে। গঙ্গাসাগরে আসা পুন্যার্থীদের অন্যান্য সময়ের থেকে বেশি ভাড়া দিতে বাধ্য করা হয়েছে। দয়া করে দেখুন, কী ভাবে দূর দূরান্ত থেকে আসা পুন্যার্থীদের কাছ থেকে টাকা তোলা হয়েছে।

গঙ্গাসাগরে পুণ্যার্থীদের লুঠ করা হয়েছে, দাবি শুভেন্দুর

এটাই দেউলিয়া পশ্চিমবঙ্গ সরকারের স্ট্যান্ডার্ড অপারেটিং প্রসিডিওর।’ তালিকা প্রকাশ করে শুভেন্দু দাবি করেছেন, ‘নামখানা থেকে বেণুবনের ভেসেলের ভাড়া যাত্রীপিছু সাধারণ সময় যেখানে ৪০ টাকা সেখানে মেলার সময় নেওয়া হয়েছে ৮৫ টাকা করে। ফলে ১১২.৫ শতাংশ বৃদ্ধি হয়েছে ভাড়ায়। কাকদ্বীপ থেকে কচুবেড়িয়ার ভেসেল ভাড়া সাধারণ সময় ০৯ টাকা। মেলার সময় ভাড়া নেওয়া হয়েছে ৪০ টাকা করে।

গঙ্গাসাগরে পুণ্যার্থীদের লুঠ করা হয়েছে, দাবি শুভেন্দুর

ভাড়ার বৃদ্ধি হয়েছে ৩৪৪ শতাংশ। শেষে তিনি লিখেছেন, যদি ধরে নিই ৫০ লক্ষ মানুষ গঙ্গাসাগর মেলায় এসেছিলেন তাহলে রাজ্য সরকার ৩৮ কোটি টাকা রোজগার করেছে।’ পাশাপাশি শুভেন্দুর অভিযোগ, ‘ডিসেম্বরে হওয়া টেট পরীক্ষার ফর্মের দামও ১০০ টাকা থেকে বাড়িয়ে ৫০০ টাকা করা হয়েছে। ৪০০ শতাংশ বৃদ্ধি হয়েছে ফর্মের দামে।

গঙ্গাসাগরে পুণ্যার্থীদের লুঠ করা হয়েছে, দাবি শুভেন্দুর

৩ লক্ষ ০৯ হাজার ৫৪ জন পরীক্ষা দিয়ে থাকলে পশ্চিমবঙ্গ সরকার ১৫ কোটি ৪৫ লক্ষ টাকা আয় করেছে। যদিও এই পরীক্ষার সঙ্গে নিয়োগের কোনও সম্পর্ক নেই।’ যদিও শুভেন্দুর এই মন্তব্যে সরব হয়েছেন সাগরের বিধায়ক তথা সুন্দরবন উন্নয়ন মন্ত্রী বঙ্কিম হাজরা।তিনি বলেন, “বিরোধী দলনেতা ভাড়া বৃদ্ধিকে কেন্দ্র করে তৃণমূল কংগ্রেসের উদ্দেশে যে মন্তব্য করেছেন, তা অযৌক্তিক, ভিত্তিহীন।

গঙ্গাসাগরে পুণ্যার্থীদের লুঠ করা হয়েছে, দাবি শুভেন্দুর

কারণ আগের সরকার গঙ্গাসাগর মেলার ভাড়া বৃদ্ধি করেনি। তবে পুণ্যার্থীদের থাকার জায়গা করে ৫ টাকা করে ট্যাক্স নিত। আমাদের মুখ্যমন্ত্রী পুণ্যার্থীদের ওপর থেকে কর তুলে নেওয়া হয়েছে। কোনও রেট, বাসভাড়া কিছুই বাড়ানো হয়নি। যা রেট ছিল, সেটাই আছে।”

Most Popular

error: Content is protected !!