Wednesday, February 28, 2024
Homeরাজ্য‘মেডেল দেওয়া উচিৎ’, হাইকোর্টে ভর্ৎসিত সিপি

‘মেডেল দেওয়া উচিৎ’, হাইকোর্টে ভর্ৎসিত সিপি

স্টাফ রিপোর্টার: খুনের মামলায় কলকাতা হাইকোর্টে ভর্ৎসিত বারাকপুরের সিপি অলোক রাজোরিয়া। গত বছরের ২৩ জুন টিটাগড়ের লক্ষ্মীঘাট এলাকায় বাড়ি ভাড়ার টাকা দেওয়াকে কেন্দ্র আহত হন গোবিন্দ যাদব।পরে মৃত্যু হয় গোবিন্দর।ময়নাতদন্তের রিপোর্টে খুনের মতো আঘাতের কথা উল্লেখ থাকে।

‘মেডেল দেওয়া উচিৎ’, হাইকোর্টে ভর্ৎসিত সিপি

কিন্তু পরিবারের অভিযোগ, খুনের ধারা যোগ করেনি পুলিশ। জল গড়ায় আদালতে। বুধবার সেই মামলারই শুনানি ছিল বিচারপতি দেবাংশু বসাকের ডিভিশন বেঞ্চে। বিচারপতি দেবাংশু বসাকের ডিভিশন বেঞ্চ মৃতের ময়নাতদন্ত রিপোর্ট দেখে বিস্ময় প্রকাশ করে। ওই রিপোর্টে খুনের মতো আঘাতের কথা উল্লেখ থাকলেও ভারতীয় দণ্ডবিধির ৩০২ ধারার বদলে শুধুমাত্র ৩০৪ নম্বর অর্থাৎ অনিচ্ছাকৃত খুনের ধারা যোগ করা হয়।

‘মেডেল দেওয়া উচিৎ’, হাইকোর্টে ভর্ৎসিত সিপি

কেন সেটা করা হল, তা নিয়েই বিস্ময় প্রকাশ করে আদালত।বিচারপতি সিপিকে প্রশ্ন তোলেন, “কেন খুনের ধারা রুজু করা হয়নি?আদৌ কি খুনের তদন্ত করছিলেন?” বিচারপতির কটাক্ষ, “রাজ্যে এমন সিপি ও এই ধরণের তদন্তকারী অফিসার থাকলে তদন্তের অবস্থা কী হবে?

‘মেডেল দেওয়া উচিৎ’, হাইকোর্টে ভর্ৎসিত সিপি

যা তদন্ত করছেন প্রত্যেককে পুলিশ মেডেল দেওয়া উচিৎ। রাজ্যের গর্ব তো আপনারা।” বিচারপতির মন্তব্য, “তদন্তের গাফিলতির দায় এড়াতে পারেন না এসপি।অভিযুক্তদের হেফাজতে রেখে সিবিআই জেরা হওয়া উচিৎ।”

Most Popular

error: Content is protected !!