Friday, March 1, 2024
Homeরাজ্যঅরূপের সামনেই মনোজ- সুজয়ের হাতাহাতি

অরূপের সামনেই মনোজ- সুজয়ের হাতাহাতি

স্টাফ রিপোর্টার: তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ‘দলীয় কোন্দল’ সরিয়ে হাওড়ার ডুমুরজলায় দ্রুত ‘ক্রিসমাস কার্নিভ্যাল’ চালু করার নির্দেশ দিয়েছিলেন বৃহস্পতিবার। শুধু তাই নয়, ‘স্থানীয় স্তরে ঝগড়া’ নিয়েও তিনি বৃহস্পতিবার কড়া বার্তা দিয়েছেন দলীয় কর্মীদের। কিন্তু তার পরেও পার্কিং ঘিরে শাসক-কোন্দল।

অরূপের সামনেই মনোজ- সুজয়ের হাতাহাতি

মন্ত্রী অরূপের সামনেই হাওড়া পুরসভার প্রশাসকমণ্ডলীর চেয়ারম্যান সুজয় চক্রবর্তীকে ধাক্কা দেওয়ার অভিযোগ উঠল রাজ্যের ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী মনোজ তিওয়ারি এবং তাঁর অনুগামীদের বিরুদ্ধে।মুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশেই বৃহস্পতিবার ডুমুরজলায় এসেছিলেন অরূপ।এদিন অরূপ বিশ্বাস ইকো পার্কের গেটে পা রাখতেই তাঁর সামনে হাওড়ার পুর প্রশসক সুজয় চক্রবর্তীকে এক ধাক্কা মারেন বিধায়ক মনোজ তিওয়ারি।

অরূপের সামনেই মনোজ- সুজয়ের হাতাহাতি

এর পর দুপক্ষের সমর্থকরা হাতাহাতিতে জড়িয়ে পড়েন। ধাক্কাধাক্কির মাঝে পড়েন অরূপ বিশ্বাসও। কোনও ক্রমে স্টেজ পর্যন্ত পৌঁছন তিনি। ওদিকে তখনও পার্কের বাইরে স্লোগান দিতে থাকেন মনোজের অনুগামীরা। এই ঘটনার কয়েক মিনিটের মধ্যে এলাকা পুলিশে ছয়লাপ হয়ে যায়।এর পর স্টেজে উঠে অরূপ বিশ্বাসের সামনে সুজয় চক্রবর্তীর হাতে ফুলের তোড়া তুলে দেন মনোজ তিওয়ারি। ফের কার্নিভাল চালু হয়।

অরূপের সামনেই মনোজ- সুজয়ের হাতাহাতি

এর পরেই বৈঠকে বসেন অরূপ, মনোজ এবং সুজয়। বৈঠক শেষে অরূপ বলেন, ‘‘সব পরিবারেই সমস্যা থাকে। মিটে গিয়েছে। এই প্রথম এখানে কার্নিভ্যাল হচ্ছে। ছোট জায়গা। ঢোকার সময় পায়ে পা লেগে লেগে গিয়েছিল। কোনও ধাক্কাধাক্কি হয়নি।’’ তাঁর কথায়, ডুমুরজলায় কার্নিভ্যাল চলবে। আরও একদিন সময়সীমা বৃদ্ধি করা হয়েছে।

অরূপের সামনেই মনোজ- সুজয়ের হাতাহাতি

অর্থাৎ ৩ জানুয়ারি পর্যন্ত চলবে এই কার্নিভ্যাল। যে বিষয়কে কেন্দ্র করে অশান্তির সূত্রপাত, সেই পার্কিং প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘‘কোনও টাকা লাগবে না পার্কিংয়ের জন্য। পার্কিং নিয়ন্ত্রণ করবে পুলিশ।’’একই কথা জানিয়েছেন মনোজ এবং সুজয়ও। পুরসভা সূত্রে জানা গিয়েছে, কার্নিভ্যাল নিয়ে গন্ডগোলের সূত্রপাত পার্কিং নিয়ে।

অরূপের সামনেই মনোজ- সুজয়ের হাতাহাতি

তার পর নিরাপত্তার কারণ দেখিয়ে বুধবার সন্ধ্যা থেকে অনির্দিষ্ট কালের জন্য বন্ধ করে দেওয়া হয় কার্নিভ্যাল। মনোজের ঘনিষ্ঠ একাংশের আপত্তিতেই কার্নিভ্যাল বন্ধ করে দেওয়া হয় বলে অভিযোগ করে হাওড়া পুরসভা। তাদের দাবি, মন্ত্রীর অনুগামীরা জটলা পাকিয়ে গন্ডগোলের পরিবেশ তৈরি করেছিলেন।

অরূপের সামনেই মনোজ- সুজয়ের হাতাহাতি

যার জেরে নিরাপত্তা বিঘ্নিত হওয়ার পরিস্থিতি তৈরি হয়েছিল। পাল্টা মনোজ দাবি করেন, বেআইনি ভাবে পার্কিং থেকে টাকা তোলা হচ্ছিল বলেই তিনি কার্নিভ্যালে গিয়েছিলেন। বেআইনি পার্কিং নিয়ে তাঁর আপত্তি ছিল। যার জেরে ব্যাপক ক্ষোভ প্রকাশ করেন মুখ্যমন্ত্রী।

অরূপের সামনেই মনোজ- সুজয়ের হাতাহাতি

বৃহস্পতিবার তিনি বলেন, পার্কিং নিয়ে কয়েকজনের মধ্যে কী হয়েছে সেজন্য কার্নিভাল বন্ধ করার দরকার ছিল না। এটাকে সমর্থন করি না।দলীয় কর্মীদের সরাসরি হুঁশিয়ারি দিয়ে তিনি বলেন, আমি কোনও ঝগড়া বরদাস্ত করব না। যদিও তৃণমূলনেত্রীর যাবতীয় তৎপরতার নিট ফল শূন্য।

Most Popular

error: Content is protected !!