Saturday, April 13, 2024
spot_img
Homeরাজ্যপরীক্ষাকেন্দ্রে ফোন বাজেয়াপ্ত করতেই ছাত্রদের হামলা, মৃত্যু শিক্ষাকর্মীর

পরীক্ষাকেন্দ্রে ফোন বাজেয়াপ্ত করতেই ছাত্রদের হামলা, মৃত্যু শিক্ষাকর্মীর

স্টাফ রিপোর্টার: বিদ্যালয়ে চলছে দশম শ্রেণির টেস্ট পরীক্ষা। যার জন্য মোবাইল নিয়ে ক্লাস রুমে ঢোকা ছিল বারণ। তবে সেই নির্দেশ উপেক্ষা করেই কয়েকজন ছাত্র ফোন নিয়ে ঢোকে স্কুলে। সেই সকল ফোন আটক করেন প্রধান শিক্ষক। তবে ফোন ফেরত পেতে পরীক্ষা শেষে লাঠি বাস নিয়ে অস্থায়ী কর্মীর উপর আক্রমণ করার অভিযোগ ।

পরীক্ষাকেন্দ্রে ফোন বাজেয়াপ্ত করতেই ছাত্রদের হামলা, মৃত্যু শিক্ষাকর্মীর

এই সব গন্ডগোলের মধ্যে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু ওই অস্থায়ী কর্মীর। ঘটনাটি ঘটেছে উত্তর ২৪ পরগনায় অবস্থিত জাগুলিয়া উচ্চ বিদ্যালয়ে। স্থানীয় সূত্রে খবর, ছোটজাগুলিয়া উচ্চ বিদ্যালয়ে দশম শ্রেণির টেস্ট পরীক্ষা ছিল বুধবার।ফলত, মোবাইল নিয়ে পড়ুয়াদের স্কুলে ঢোকা কার্যত বারণ ছিল।

পরীক্ষাকেন্দ্রে ফোন বাজেয়াপ্ত করতেই ছাত্রদের হামলা, মৃত্যু শিক্ষাকর্মীর

অভিযোগ, এরপরও পরীক্ষার হলে অনেকেই মোবাইল নিয়ে আসে। সেই মোবাইলগুলি বাজেয়াপ্ত করা হয়। স্কুল কর্তৃপক্ষর দাবি, পরীক্ষার পর সেই মোবাইলগুলি যাঁদের অভিভাবক এসেছিল তাঁদের হাতে দিয়ে দেওয়া হয়।তবে অভিযোগ, পড়ুয়াদের কেউ কেউ অভিভাবকদের সঙ্গে কথা না বলেই লাঠিসোটা নিয়ে চড়াও হয়।হেনস্থা করা হয় প্রধানশিক্ষককেও।

পরীক্ষাকেন্দ্রে ফোন বাজেয়াপ্ত করতেই ছাত্রদের হামলা, মৃত্যু শিক্ষাকর্মীর

স্কুল কর্তৃপক্ষের তরফে অভিযোগ, ওই সময় উত্তেজিত ছাত্রদের সামাল দিতে যান স্কুলের শিক্ষাকর্মী শিবু শী। কিন্তু, ওই পড়ুয়ারা শিবুর উপর চড়াও হয়। ঠেলাঠেলি, হুড়োহুড়িতে স্কুল চত্বরে পড়ে যান শিবু। প্রচণ্ড অসুস্থ বোধ করতে থাকেন তিনি। সঙ্গে সঙ্গে তাঁকে উদ্ধার করে ছোটজাগুলিয়া স্বাস্থ্যকেন্দ্রে নিয়ে যাওয়া হয়।

পরীক্ষাকেন্দ্রে ফোন বাজেয়াপ্ত করতেই ছাত্রদের হামলা, মৃত্যু শিক্ষাকর্মীর

কিন্তু চিকিৎসকেরা ওই শিক্ষাকর্মীকে মৃত বলে ঘোষণা করেন। প্রাথমিক ভাবে জানা যাচ্ছে, হৃদ্‌রোগে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়েছে ওই শিক্ষাকর্মীর।এই খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে আসে দত্তপুকুর থানার পুলিশ। ওই মৃত্যুর খবর ছড়িয়ে পড়ায় উত্তেজনা আরও বৃদ্ধি পায়।

পরীক্ষাকেন্দ্রে ফোন বাজেয়াপ্ত করতেই ছাত্রদের হামলা, মৃত্যু শিক্ষাকর্মীর

ইতিমধ্যে স্কুলের বিভিন্ন সিসিটিভির ফুটেজ খতিয়ে দেখছে পুলিশ। পুরো ঘটনায় তীব্র চাঞ্চল্য এলাকায়। যদিও এখনও কারও আটক বা গ্রেফতারির খবর মেলেনি।

Most Popular