Friday, June 14, 2024
spot_img
spot_img
Homeরাজ্যতর্পণ করতে গিয়ে তলিয়ে গেলেন বেশ কয়েক জন

তর্পণ করতে গিয়ে তলিয়ে গেলেন বেশ কয়েক জন

স্টাফ রিপোর্টার: তর্পণ করতে গিয়ে গঙ্গায় তলিয়ে গেলেন কয়েক জন।মহালয়ার সকালে হুগলির হিন্দমোটরের বিবি স্ট্রিট ঘাটে এই ঘটনা ঘটেছে।একই ঘটনা ঘটছে উত্তর ২৪ পরগনার পানিহাটিতেও।জানা গিয়েছে, মহালয়ার ভোরে হুগলি জেলার উত্তরপাড়া, হিন্দমোটর অঞ্চলেও প্রতিটি ঘাটে তর্পণ করতে জড়ো হন বহু মানুষ।

তর্পণ করতে গিয়ে তলিয়ে গেলেন বেশ কয়েক জন

হিন্দমোটর বিবি স্ট্রিট ঘাটে দুর্ঘটনা হয়। গঙ্গায় বান এলে তলিয়ে যান বেশ কয়েক জন। ঘাটে উপস্থিতরা জানান, পাঁচ জন বানের জলে ভেসে গিয়েছেন। তলিয়ে যাওয়ার খবর পেয়ে উত্তরপাড়া থানার পুলিশ যায় ঘটনাস্থলে। চন্দননগর পুলিশের ডিসিপি শ্রীরামপুর অরবিন্দ আনন্দ, এসিপি আলি রাজা এবং উত্তরপাড়ার আইসি পার্থ সিকদার ওই ঘাটে উপস্থিত হন।

তর্পণ করতে গিয়ে তলিয়ে গেলেন বেশ কয়েক জন

খবর পেয়ে উত্তরপাড়া পুরসভার চেয়ারম্যান দিলীপ যাদবও চলে আসেন। স্থানীয়দের অভিযোগ, বান আসার সময় জানা থাকলেও পুলিশ সতর্ক করেনি। বান যখন কাছে এসে যায় তখন বাঁশি বাজানো হয়। ফলে জলে স্নান করতে নামা লোকজন ভেসে যান।দুর্ঘটনা প্রসঙ্গে উত্তরপাড়া পুরসভার চেয়ারম্যান দিলীপ বলেন, ‘‘একটা শুভ দিনে দুর্ঘটনা ঘটে গিয়েছে।

তর্পণ করতে গিয়ে তলিয়ে গেলেন বেশ কয়েক জন

কার দোষ ছিল, কার গুণ, সেটা এখন বিচার করার সময় নয়। যাঁরা নিখোঁজ হয়েছেন তাঁদের খোঁজে তল্লাশি চালানো হচ্ছে। প্রশাসনের যেমন দায়িত্ব থাকে, যাঁরা গঙ্গায় নেমে স্নান করেন, তাঁদেরও একটা দায়িত্ব থেকে যায়।’’ তিনি জানান, ঠিক কত জন তলিয়ে গিয়েছেন তা স্পষ্ট নয়। প্রত্যক্ষদর্শীদের কেউ বলছেন, দু’জন, কেউ বলছেন তিন, কেউ বা বলছেন পাঁচ জনের তলিয়ে যাওয়ার কথা।

তর্পণ করতে গিয়ে তলিয়ে গেলেন বেশ কয়েক জন

অন্যদিকে, স্ত্রীকে নিয়ে মধ্যমগ্রামের বাসিন্দা শেখর মণ্ডল পানিহাটির গিরিবালা ঘাটে তর্পণ করতে এসেছিলেন। গঙ্গায় স্নানে নেমে হঠাৎই পা পিছলে ডুবে যান তিনি। সঙ্গে সঙ্গে ডুবুরি নামিয়ে খোঁজ চালানো হচ্ছে। ঘটনাকে কেন্দ্র করে ব্যাপক চাঞ্চল্য তৈরি হয়েছে এলাকায়। ঘটনাস্থলে যান পুলিশ কমিশনার অমিত পি জাভালগি।

তর্পণ করতে গিয়ে তলিয়ে গেলেন বেশ কয়েক জন

তিনি জানান, দু’জন নিখোঁজ রয়েছেন। বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনী নামানো হয়েছে। তল্লাশি চলছে। পাশাপাশি অন্যান্য ঘাটে সতর্কবার্তা পাঠানো হয়েছে।যদিও পত্রিকাটি মুদ্রণে যাওয়া পর্যন্ত তাঁদের খোঁজ পাওয়া যায়নি।

Html code here! Replace this with any non empty raw html code and that's it.

Most Popular

error: Content is protected !!