Friday, May 24, 2024
spot_img
spot_img
Homeজেলানদী চুরি করে কুলতলিতে উঠছে বেআইনি নির্মাণ

নদী চুরি করে কুলতলিতে উঠছে বেআইনি নির্মাণ

রফিকুল ঢালি, কুলতলি: প্রশাসনকে বুড়ো আঙুল দেখিয়ে একের পর এক কংক্রিটের নির্মাণ নদীতে। কুলতলি বিধানসভার পিয়ালি নদী ও পেটকুলচাঁদ নদীর পাড়ের ম্যানগ্রোভ কেটে তৈরি হয়েছে বাড়ি। প্রশাসনের নজরদারি এড়িয়ে একের পর এক নির্মাণ হয়ে চলেছে। প্রশাসনের তরফ থেকে নিষেধ করার পরেও নদী চুরি বন্ধ করা যাচ্ছে না কুলতলিতে।

নদী চুরি করে কুলতলিতে উঠছে বেআইনি নির্মাণ

এখানকার মেরিগঞ্জ ২ নম্বর গ্রামের পিয়ালি নদীর পাড়ে সরকারি জমি দখল করে কংক্রিটের নির্মাণ হচ্ছে। এছাড়াও গুড়গুড়িয়া ভুবনেশ্বরী, গ্রামের পেটকুল বাজার এলাকায় পেটকুল চাঁদ নদী পাড়ে ম্যানগ্রোভ কেটে তৈরি হয়েছে বাড়ি।ক্যামেরার সামনে সোনালি নার্সিংহোমের কর্ণধার ইমরান খান বলেন, এলাকায় অনেকেই নদীর পাড় অবৈধভাবে দখল করে বাড়ি তৈরি করেছেন।

নদী চুরি করে কুলতলিতে উঠছে বেআইনি নির্মাণ

তাঁদের দেখেই আমিও বাড়ি তৈরি করছিলাম, আমার প্রয়োজন ছিল। কিন্তু প্রশাসন আমার নির্মাণকাজ বন্ধ করতে বলেছে। আরও এক ধাপ এগিয়ে তারাপদ পাল, বিজেপির কুলতলির সাধারণ সম্পাদক বলেন, যেখানে ম্যানগ্রোভ ছিল না, সেখানে বাড়ি করেছি। আর যেখানে ম্যানগ্রোভ রয়েছে, সেখানেও আগামী দিনে বাড়ি হবে। তবে এই জায়গাটির পাট্টা তিনি পেয়েছেন বলে দাবি করেন।

নদী চুরি করে কুলতলিতে উঠছে বেআইনি নির্মাণ

এলাকার মানুষের অভিযোগ, বেআইনিভাবে নদীবক্ষ থেকে মাটি কেটে ম্যানগ্রোভ কেটে বা তৈরি হচ্ছে বাড়ি প্রশাসন বারণ করলেও তাতে কান দিচ্ছে কে?কুলতলির বিধায়ক গণেশচন্দ্র মণ্ডল বলেন, পরিবেশ ধ্বংস করে কোথাও বাড়ি বা অন্য কোনও কাজ করতে দেওয়া হবে না।

নদী চুরি করে কুলতলিতে উঠছে বেআইনি নির্মাণ

বনদপ্তর ও পুলিশ-প্রশাসনকে কড়া ভাবে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে, যে কোনও রাজনৈতিক দল বা সাধারণ মানুষ ম্যানগ্রোভ অথবা নদী নষ্ট করবে, তাদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।সিপিএমের কুলতলি এরিয়া কমিটির সম্পাদক উদয় মণ্ডল অভিযোগ করেন, তৃণমূল সব পারে। প্রশাসনের নাকের ডগায় কীভাবে নদী চুরি হচ্ছে, তা নিয়ে তিনি প্রশ্ন তোলেন।

Most Popular

error: Content is protected !!