Tuesday, May 28, 2024
spot_img
spot_img
Homeজেলামাধ্যমিক পরীক্ষায় সাগর ব্লকে প্রথম অভাবী সংসারের ছেলে ভবিষ্যতে হতে চায় ডাক্তার

মাধ্যমিক পরীক্ষায় সাগর ব্লকে প্রথম অভাবী সংসারের ছেলে ভবিষ্যতে হতে চায় ডাক্তার

অমিত মণ্ডল, সাগর: ভাঙা দেওয়াল। তার ওপর খড়ের ছাউনি। আর তাতেই যে এত বড় নক্ষত্র লুকিয়ে ছিল, তা বুঝতে পারেননি পরিবারের লোকজন। এবারের মাধ্যমিক পরীক্ষায় সাগর ব্লকে প্রথম স্থান অধিকার করে সবাইকেই তাক লাগিয়ে দিয়েছে অভাবী সংসারের এই ছেলে।

মাধ্যমিক পরীক্ষায় সাগর ব্লকে প্রথম অভাবী সংসারের ছেলে ভবিষ্যতে হতে চায় ডাক্তার

২০২৩ শিক্ষাবর্ষে সাগর সমন্বিত সরকারি বিদ্যালয় থেকে মাধ্যমিক পরীক্ষায় সাগর দ্বীপে প্রথম স্থান অধিকার করেছে জয়ন্ত পাত্র। জয়ন্তের বাড়ি সাগরের খাসরামকর সরস্বতী বাজারের কাছে। একচালা জরাজীর্ণ মাটির বাড়ি। দেওয়ালের মাটি খসে খসে পড়ছে।

মাধ্যমিক পরীক্ষায় সাগর ব্লকে প্রথম অভাবী সংসারের ছেলে ভবিষ্যতে হতে চায় ডাক্তার

তার ওপর ছাউনি বলতে ত্রিপল আর খড়। জয়ন্তের বাবা অশোক পাত্র পেশায় একজন মুদি দোকানের কর্মচারী। টেনেটুনে কোনওরকমে দিনটুকু গুজরান হয়। সেই অভাবী পরিবারের ছেলে এ বছরের মাধ্যমিক পরীক্ষায় ৬৭৩ নম্বর পেয়ে তাক লাগিয়ে দিয়েছে সবাইকে।

মাধ্যমিক পরীক্ষায় সাগর ব্লকে প্রথম অভাবী সংসারের ছেলে ভবিষ্যতে হতে চায় ডাক্তার

এ বিষয়ে জয়ন্ত জানায়, তার স্বপ্ন রয়েছে ডাক্তারি নিয়ে পড়ার। ডাক্তার হয়ে গরিব মানুষের সেবা করতে চায় সে। তার রেজাল্ট প্রকাশিত হওয়ার পরেই বাড়িতে দেখা করতে আসেন স্কুলের শিক্ষক, শিক্ষিকারা। অভাবী সংসারের মধ্যে থেকেও জয়ন্ত সাগর গোটা সাগর ব্লককে গর্বিত করেছে।

মাধ্যমিক পরীক্ষায় সাগর ব্লকে প্রথম অভাবী সংসারের ছেলে ভবিষ্যতে হতে চায় ডাক্তার

এদিকে, নিত্যদিন অভাব লেগে রয়েছে সংসারে। ছেলেকে কীভাবে উচ্চশিক্ষিত করবেন, তা নিয়ে এখন চিন্তায় জয়ন্তর বাবা। এ বিষয়ে জয়ন্তর বাবা জানিয়েছেন, কোনওরকম সাহায্য ছাড়া ছেলেকে উচ্চশিক্ষিত করা একপ্রকার চ্যালেঞ্জ হয়ে দাঁড়াবে তাঁর কাছে।

Most Popular

error: Content is protected !!